বহু আকাঙ্খিত “ঈদগাঁও থানা”র উদ্বোধন করলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশিত: ৯:২৪ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ২০, ২০২১

দীর্ঘদিনের লালিত স্বপ্ন কক্সবাজারে নতুন ‘ঈদগাঁও থানা’ উদ্বোধন করা হয়েছে। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান এমপি ২০শে জানুয়ারী প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত থেকে ঈদগাঁও থানার আনুষ্টানিক উদ্বোধন করেন। উদ্বোধনের মাধ্যমে কক্সবাজার জেলার প্রশাসনিক ইতিহাসে নব দিগন্তের উম্মোচন হল।কক্সবাজার সদরের ৫টি ইউনিয়ন ঈদগাঁও, জালালাবাদ, ইসলামাবাদ, ইসলামপুর ও পোকখালী ইউনিয়ন নিয়ে ঈদগাঁও থানা স্থাপিত করা হয়েছে।

গত ২০১৯ সালের ১৯ অক্টোবর প্রশাসনিক পূণর্বিন্যাস সংক্রান্ত জাতীয় কমিটি (নিকার) এর সভায় নেওয়া সিদ্ধান্ত অনুযায়ী গেজেট প্রকাশ করে ঈদগাঁও থানা গঠন করা হয়।

ইসলামাবাদের ফকিরাবাজারস্থ এই ঈদগাঁও থানার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে কক্সবাজার-৩ আসনের সংসদ সদস্য সাইমুম সরওয়ার কমল, কক্সবাজার-২ আসনের সংসদ সদস্য আশেক উল্লাহ রফিক, সংসদ সদস্য কানিজ ফাতেমা আহমদ, সংসদ সদস্য জাফর আলম এম এ, আইজিপি ড. বেনজীর আহমেদ, পুলিশের চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি মোঃ আনোয়ার হোসেন বিপিএম (বার) পিপিএম (বার), কউক চেয়ারম্যান লে.কর্নেল (অব:) ফোরকান আহমদ, পুলিশ সুপার মোঃ হাসানুজ্জামান পিপিএম, জেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এডভোকেট ফরিদুল ইসলাম চৌধুরী, সাধারন সম্পাদক মুজিবুর রহমান, সদর উপজেলা নিবার্হী কর্মকতা সুরাইয়া আক্তার সুইটি,জেলা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক মারুফ আদনান,সাবেক সাধারন সম্পাদক ও ইউপি চেয়ারম্যান ইমরুল হাসান রাশেদ,ইউপি চেয়ারম্যান ছৈয়দ আলম,নুর ছিদ্দিক,রফিক আহমদ,আবুল কালাম,বিএমএস এফ ঈদগাঁও থানা শাখার সাধারন সম্পাদক এম আবু হেনা সাগরসহ আরো অনেকে উপস্থিত ছিলেন।

মহাসড়কের ঈদগাঁও স্টেশনের একটু উত্তরে ইসলামাবাদ ইউনিয়নের তেতুলতলীর বর্তমান তদন্ত কেন্দ্রকে থানায় রূপান্তর করা হয়েছে। কক্সবাজার সদর মডেল থানার অধীনে ছিল এ ঈদগাঁও তদন্ত কেন্দ্রটি। নবগঠিত ঈদগাঁও থানায় রূপান্তরের মাধ্যমে জেলায় পুলিশী থানার সংখ্যা হবে ৯টি।




error: কপি রাইট আইনে সর্বস্বত সংক্ষিত