করোনা কালীন সচেতনতা বৃদ্ধিতে কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগ

প্রকাশিত: ৮:২১ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৮, ২০২১

বাংলাদেশে প্রথম কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হয় ৮ মার্চ। তবে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে বাংলাদেশে প্রথম কারো মৃত্যু হয় ১৮ মার্চ। সারাবিশ্বের মত বাংলাদেশেও করোনা ভাইরাস থেকে বাঁচার জন্য বিভিন্ন ধরনের সচেতনামূলক কর্মকান্ড গ্রহন করা হয়েছে । তবুও করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা দিনদিন বাড়ছে ।  গত বছরের ডিসেম্বরে চীনে করোনাভাইরাসের উপদ্রব শুরু হয়। এটি বর্তমানে বিশ্বের ২১৩ দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে। ১১ মার্চ কোভিড ১৯-কে বৈশ্বিক মহামারী ঘোষণা করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে পারলেই করোনা ভাইরাসের সংক্রামন কমানো যাবে বলে বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন । তাই সারাবিশ্বের মত বাংলাদেশের পর্যটন নগরী কক্সবাজারেও  লকডাউন ঘোষনা করা হয়েছিল এবং স্বাস্থ্য সচেতনতা বৃদ্ধিতে বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহন করা হচ্ছে । ৪ই জানুয়ারী ছাত্রলীগের ৭৩তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের মাস ব্যাপী কর্মসুচী অনুযায়ী স্বাস্থ্যবিধি মেনে ভ্রমন পিপাসু পর্যটনদের সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে আজ কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে  মাস্ক , সুরক্ষা সামগ্রী এবং লিফলেট বিতরন করা হয়  । যে সকল পর্যটকদের মুখে মাস্ক ছিল তাদের ফুল দিয়ে দীর্ঘতম সমুদ্রতীরে শুভেচ্ছা জানানো হয়  এবং যাদের মুখে মাস্ক ছিল না তাদের মাস্ক,সুরক্ষা সামগ্রী দেওয়া সহ সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার ব্যাপারে সচেতন করা হয় ।

 

শিশুদের মাস্ক পড়িয়ে দিচ্ছেন কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারন সম্পাদক

 

এই সময়ে কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সাদ্দাম হোছাইন গণমাধ্যমকে বলেন ,

বিশ্বের দীর্ঘতম সমুদ্র শহর কক্সবাজার পর্যটন বিহীন  বেমানান ।বাংলাদেশ সহ সারাবিশ্বের অন্যতম আকর্ষন এই কক্সবাজার সমুদ্র সৈকত , তবে বৈশ্বিক মহামারী করোনা ভাইরাসের কারনে দীর্ঘদিন পর্যটন সমাগম না হলেও বর্তমানে পর্যটকদের আগমন চোখে পরার মত। তাই তাদের করোনা ভাইরাস থেকে সুরক্ষা এবং সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগ এই কর্মসূচী গ্রহন করেছে।  প্রতিষ্ঠা লঘ্ন থেকে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ দেশের সকল সংকটাপন্ন অবস্থায় অগ্রনী ভূমিকা রেখে আসছে  এবং রাখবে ।

কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক  মারুফ আদনান বলেন  ,

শীতকালীন এ সময়ে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ আশঙ্কা রয়েছে। এরই মধ্যে পর্যটকদের পদাভারে মূখরিত হয়ে উঠে বিশ্বের দীর্ঘতম সমুদ্র সৈকত কক্সবাজার। কিন্তু আগত পর্যটকদের মাঝে করোনা সচেতনতা লক্ষ্য করা যাচ্ছে না। এমন পরিস্থিতিতে ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে পর্যটকদের মাঝে করোনা সচেতনতা বৃদ্ধি করতে জেলা ছাত্রলীগ স্বাস্থ্য সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ কার্যক্রম শুরু করেছে।

এই সময় উপস্থিত ছিলেন কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি মুন্না চৌধুরী, বোরহান উদ্দিন খোকন , সাংগঠনিক সম্পাদক কামরুজ্জামান হিরু , গাজী নাজমুল সহ অসংখ্য ছাত্রলীগের নেতা কর্মী ।

প্রসঙ্গত ,মাস ব্যাপী কর্মসূচী অনুযায়ী আগামী ১৩ জানুয়ারি শীতার্তদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ , ১৬ই জানুয়ারি শতকন্ঠে জাতীয় সঙ্গীত ও দলীয় সঙ্গীত পরিবেশন, জেলার ফেইসবুক পেইজ ও ওয়েবসাইট উদ্বোধন এবং বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা, ২০ই জানুয়ারি চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা ও ২৩শে জানুয়ারি রচনার প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হবে এবং ২৬শে জানুয়ারি বিশ্বের দীর্ঘতম সমুদ্র সৈকতে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা অভিযান কর্মসূচি করবে কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগ।

 

 

 




error: কপি রাইট আইনে সর্বস্বত সংক্ষিত
%d bloggers like this: