হাসপাতালে সাকিব

প্রকাশিত: ১:২২ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৫, ২০২১

উইন্ডিজ টেস্ট সিরিজের প্রথম ম্যাচের তৃতীয় দিন অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানকে ছাড়াই খেলছে বাংলাদেশ।  তার বদলি হিসেবে ফিল্ডিং দিচ্ছেন ইয়াসির আলী রাব্বী।

মাঠে সাকিবের অনুপস্থিতি নিয়ে এখনও পর্যন্ত আনুষ্ঠানিক কোনো বিবৃতি দেননি বাংলাদেশ টিম ম্যানেজমেন্ট।

তবে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ওয়ানডে সিরিজে কুঁচকিতে পাওয়া চোট ফের মাথা চাড়া দিয়ে উঠেছে সাকিবের।  চোট কতটা গুরুতর তা জানতে ইতোমধ্যে হাসপাতালে গেছেন সাকিব।  সেখানে স্ক্যান করানো হবে তাকে।

দল সূত্রে জানা গেছে, দলের সঙ্গে সকালে মাঠে এসেছিলেন সাকিব। কিন্তু ওয়ার্মআপে নেমেই চোটের জায়গায় অস্বস্তিবোধ করেন। তাকে নিয়ে কোনো ঝুঁকি নিতে চাচ্ছেন না নির্বাচকরা।  তাই তাকে ম্যাচে না নামানোর সিদ্ধান্ত হয়।

তবে কী সাকিব এ টেস্টে আর বল করছেন না? ব্যাট করবেন কী? – এমন প্রশ্ন উঠেছে টাইগার সমর্থকদের মাঝে।

এর জবাবে বিসিবির চিকিৎসক দেবাশিষ চৌধুরী বলেছেন, ‘সাকিবের একটু ব্যথা আছে।  তার আজই একটা স্ক্যান করা জরুরি হয়ে পড়েছিল।  কিন্তু শুক্রবার সব বন্ধ থাকায় এ নিয়ে জটিলতা দেখা দেয়। পরে স্থানীয় এক হাসপাতালে সাকিবকে স্ক্যান করাতে নেওয়া হয়েছে। তিনি আবার মাঠে নামবেন কিনা, সেটি নির্ভর করছে স্ক্যান রিপোর্টের ওপর। তবে অবস্থা যা, তাতে আজ তিনি মাঠে নামছেন না।  কিন্তু দলের প্রয়োজনে কাল ব্যাটিং করতে নামতে পারেন।

সাকিবের পুরনো ইনজুরির ফের জেগে ওঠা বাংলাদেশ দলে বড় ধরনের ধাক্কা।  যদিও সাকিবকে ছাড়া ভালোই খেলছেন টাইগাররা।  তাইজুল, মিরাজ আর নাঈমের ঘূর্ণিজাদুতে সাকিবের অনুপস্থিতি সেভাবে টের পাওয়া যাচ্ছে না।

দিনের শুরুতেই এনক্রুমা বোনারকে ফিরিয়েছেন বাঁহাতি স্পিনার তাইজুল।  ভয়ানক হয়ে ওঠা ব্রাথওয়াইটকে ৭৬ রানে থামিয়ে দেন নাঈম।  এর পর ওয়ানডে মেজাজে খেলে ৪০ রান করে ফেলা কাইল মায়ার্সকে থামান মিরাজ।

এ রিপোর্ট লেখার সময় ওয়েস্ট ইন্ডিজের সংগ্রহ ৬২ ওভার শেষে ৫ উইকেটে ১৮৯ রান ।

প্রসঙ্গত গত ২৫ জানুয়ারি ওয়ানডে সিরিজের তৃতীয় ম্যাচে নিজের বলে ফিল্ডিং করতে গিয়ে কুঁচকিতে চোট পান সাকিব। এর পর মাঠ ছেড়ে চলে যান।  টেস্টে একাদশে থাকবেন কিনা সে সংশয় জাগে।  তবে চিকিৎসকের ৭২ ঘণ্টার পর্যবেক্ষণের পর স্ক্যান রিপোর্ট ভালো আসে।  যে কারণে প্রথম টেস্টেই দলে ফেরেন সাকিব।  কিন্তু সেই চোট আবারও তাকে ম্যাচ থেকে ছিটকে দিতে পারে বলে শঙ্কা জেগেছে।




error: কপি রাইট আইনে সর্বস্বত সংক্ষিত