রক্তাক্ত সদর ছাত্রলীগ সভাপতি

প্রকাশিত: ৭:৪২ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২২, ২০১৯

কক্সবাজার ২২ আগস্ট ১৯ ইং


কক্সবাজার সদর উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি কাজী তামজিদ পাশাকে নৃশংসভাবে কুপিয়েছে সন্ত্রাসীরা। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। এ সময় তার সঙ্গে থাকা ছাত্রলীগ নেতাসহ আহত হয়েছেন আরও তিনজন।


বৃহস্পতিবার (২২ আগস্ট) বিকেলে খুরুশকুল তেতৈয়া এলাকায় এ হামলার ঘটনা ঘটে।

তেতৈয়া এলাকার বাদশা মিয়ার ছেলে শেখ কামালের নেতৃত্বে পুতিয়া, লুতিয়া ও আজিজুল হকসহ ১০-১২ জনের একদল দুর্বৃত্ত এ হামলা চালায় বলে দাবি করেছেন আহত ছাত্রলীগ নেতার পরিবার।

হামলার শিকার ছাত্রলীগ সভাপতি কাজী তামজিদ পাশা খুরুশকুল তেতৈয়া এলাকার শফিউল হকের ছেলে।

অন্য আহতরা হলেন- একই এলাকার আবুল কালামের ছেলে মোহাব্বত (২৮), ছাত্রলীগ নেতা বাপ্পী (২৭) ও আবুল কাশেম জয় (২৮)। তাদের সবাইকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

হামলার শিকার সদর উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি কাজী তামজিদ পাশার বড় ভাই দিদারুল হক বলেন, বেড়িবাঁধের পাশের পৈতৃক জমির চাষ দেখভাল শেষে আসার পথে তামজিদ পাশা ও তার সঙ্গে থাকা যুবকদের ওপর হামলা করে সন্ত্রাসীরা।

এ সময় তামজিদ পাশাকে মাথায় ও শরীরে কুপিয়ে ও হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে জখম করে হামলাকারীরা। অন্য যুবকদের হাতুড়ি ও অন্যান্য অস্ত্র দিয়ে আঘাত করা হয়। মারাত্মক আহত তামজিদকে নিয়ে তার সঙ্গীরা পালিয়ে যায়। এতে প্রাণে রক্ষা পান তারা। খবর পেয়ে তাদের উদ্ধার করে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। তামজিদ পাশার অবস্থা অত্যন্ত আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকেরা।

এ ব্যাপারে কক্সবাজার সদর মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফরিদ উদ্দীন খন্দকার বলেন, হামলার খবর পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়। আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। হামলাকারীদের গ্রেফতারে অভিযান চালাচ্ছে পুলিশ।