নারীদের সাইবার হয়রানি রোধে নতুন ইউনিট, পরিচালনায় নারী পুলিশ

প্রকাশিত: ৭:১৩ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১৬, ২০২০
রাজধানীর রাজারবাগে পুলিশ লাইনে আনুষ্ঠানিক এই ইউনিটের উদ্বোধন করেন পুলিশের মহাপরিদর্শক বেনজীর আহমেদ।

দেশের ৬৮ শতাংশ নারী বিভিন্ন প্রকার সাইবার অপরাধের শিকার হচ্ছেন।  এবার সেই ভুক্তভোগী নারীদের নিরাপত্তা ও আইনি সহায়তা দিতে ‘পুলিশ সাইবার সাপোর্ট ফর উইমেন ইউনিট’ নামে একটি নতুন ইউনিট গঠন করা হয়েছে।  ওই ইউনিট চালাবেন নারী পুলিশ সদস্যরাই।

সোমবার রাজধানীর রাজারবাগে পুলিশ লাইনে আনুষ্ঠানিক এই ইউনিটের উদ্বোধন করেন পুলিশের মহাপরিদর্শক বেনজীর আহমেদ।

তিনি বলেন, নারী পুলিশ কর্মকর্তারাই এই ইউনিটে কাজ করবে।  তারা সাইবার সংক্রান্ত অভিযোগের কল রিসিভ করবেন এবং ভুক্তভোগীকে তাৎক্ষণিক করণীয় ও সহায়তার পরামর্শ দেবেন।

আইজিপি বলেন, দেশ-কালের সীমা পেরিয়ে সাইবার অপরাধ সংঘটিত হয়। অপরাধীরা বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফেইক আইডি খুলে অপরাধ করে থাকে। বাংলাদেশে এই সংক্রান্ত অপরাধের অভিযোগে সংশ্লিষ্ট আইনে এখন পর্যন্ত ছয় হাজার ৯৯টি মামলা করা হয়েছে। এসব ঘটনার বেশির ভাগ ভুক্তভোগী নারী।

সাইবার অপরাধ রোধে গণমানুষকে পুলিশের কাজে সহায়তা করতে আহ্বান জানান আইজিপি বেনজীর আহমেদ।

সদর দফতরের এলআইসি শাখার অধীনে নতুন এই ইউনিটের কার্যক্রম চলবে। এর জন্য একটি ফেসবুক পেজ, ইমেইল আইডি ও হটলাইন চালু হয়েছে।

সাইবার অপরাধের শিকার যে কেউ – cybersupport.women@police.gov.bd মেইল করে বা হটলাইন- ০১৩২০০০০৮৮৮ নম্বরে ফোন করে অভিযোগ জানাতে পারে।




error: কপি রাইট আইনে সর্বস্বত সংক্ষিত
%d bloggers like this: