বাংলাদেশ, , মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

কক্সবাজারের মহেশখালীতে টেকনিক্যাল কলেজের কাজের শুভ উদ্ভোধন

বাংলাদেশ পেপার ডেস্ক ।।  সংবাদটি প্রকাশিত হয়ঃ ২০২০-০২-২৬ ২২:৪৫:২৩  

এম এ রহমান ছিদ্দিকী,মহেশখালীঃ

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর জননেত্রী শেখ হাসিনার সরকার শিক্ষা বান্ধব সরকার, মহেশখালী-কুতুবদিয়া আসনের সাংসদ আলহাজ্ব আশেক উল্লাহ রফিকের আন্তরিক প্রচেষ্টায় ২য় টঙ্গীপাড়া নামে খ্যাত মাতারবাড়ী ইউনিয়নের প্রবেশ দ্বারে উন্নতমানে টেকনিক্যাল কলেজ এর কাজ মোনাজাতের মধ্যে দিয়ে আজ (২৬ ফেব্রুয়ারী) বুধবার অনুষ্ঠানিক শুভ উদ্বোধন করেছে স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ মাতারবাড়ী ইউনিয়ন শাখার নেতৃবৃন্দরা।

এতে উপস্থিত ছিলেন মহেশখালী উপজেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সদস্য ও মাতারবাড়ী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি এ.কে.এম. জাহাঙ্গীর বাদশা, কক্সবাজার জেলা পরিষদের সদস্য ও মাতারবাড়ী উচ্চ বিদ্যালয়ের সিনিয়র শিক্ষিকা মশরফা জন্নাত, মাতারবাড়ী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি জি.এম. ছমি উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক এস.এম. আবু হায়দার, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা রকিবুল ইসলাম, ৩নং ওয়ার্ডের এম.ইউ.পি. আলহাজ্ব রিয়াজ উদ্দিন, ৩নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ দিলুসহ স্থানীয়রা উপস্থিত ছিলেন।

মহেশখালী উপজেলার মাতারবাড়ীতে সরকারের বিভিন্ন উন্নয়ন মেগাপ্রকল্প স্থাপন হচ্ছে। উক্ত মেগা প্রকল্প পরির্দশনে সরকারের বিভিন্ন সচিব, মন্ত্রী, এমপিদ্বয় মাতারবাড়ীতে আসছে।মহেশখালী-কুতুবদিয়া আসনের সাংসদ আলহাজ্ব আশেক উল্লাহ রফিক সংসদ অধিবেশনে প্রস্তাব করলে উক্ত প্রস্তাব আমলে নিয়ে ২য় টঙ্গীপাড়া নামে খ্যাত মাতারবাড়ী ইউনিয়নে টেকনিক্যাল কলেজের জায়গা নির্ধারণ করে সরকারের প্রতিনিধি টিম। ২৬ ফেব্রুয়ারি জায়গার দাতাসহ স্থানীয়রা মাতারবাড়ী টেকনিক্যাল কলেজ এর কাজের অনুষ্ঠানিক শুভ উদ্বোধন।

মাতারবাড়ী টেকনিক্যাল কলেজ এর কাজের অনুষ্ঠানিক শুভ উদ্বোধন শেষে জায়গার দাতা সদস্য বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ মাতারবাড়ী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি এ.কে.এম. জাহাঙ্গীর বাদশা বলেন, দিন বদলের অঙ্গিকার শিক্ষা মোদের অহংকার আমার এলাকায় সরকারের বড় বড় মেগাপ্রকল্প স্থাপন হতে যাচ্ছে। আমাদের এলাকার ছেলে-মেয়েরা বাড়ী থেকে গিয়ে সরকারের দেয়া টেকনিক্যাল কলেজে পড়া-লেখা করতে পারবে সেইটা আমার এলাকাবাসীদের জন্য সব চাইতে বড় পাওনা।

তিনি আরো জানান মাতারবাড়ী টেকনিক্যাল কলেজে পড়া-লেখা শেষ করে আমার এলাকায় স্থাপনকৃত মেগাপ্রকল্পে চাকরী করতে পারবে আমাদের ছেলে- মেয়েরা। উন্নয়ত শিক্ষার বিষয় চিন্তা করে আমরা রাজঘাটবাসী সরকারের ডাকে সাড়া দিয়ে টেকনিক্যাল কলেজ করার জন্য জায়গা দিয়েছি।


পূর্ববর্তী - পরবর্তী সংবাদ
       
                                             
                           
ফেইসবুকে আমরা